একসঙ্গে ৫০ টি ডিম খাওয়ার বাজি ধরে মৃত্যু হল যুবকের। বাজি ধরলেও প্রায় জেতার পথেই ছিলেন সেই যুবক। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত একেবারে শেষ দিকে যখন ৪২ নম্বর ডিমটি মুখে দেবেন; ঠিক সেই সময় মাটিতে লুটিয়ে পড়েন, হারিয়ে ফেলেন সংজ্ঞা। কিছুক্ষণের মধ্যেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন তিনি।

মাত্র ২ হাজার টাকার জন্য অর্ধশত ডিম খাওয়ার এই বাজি ধরে জীবনের বিনিময়ে তার মূল্য চুকিয়েছেন ভারতের উত্তরপ্রদেশের জৈনপুর জেলার বাসিন্দা সুভাষ যাদব (৪২)।

সোমবার (০৪ নভেম্বর) ভারতীয় বার্তাসংস্থা ইন্দো-এশিয়ান নিউজ সার্ভিস (আইএএনএস) বলছে, ডিম খাওয়ার এক চ্যালেঞ্জের মূল্য প্রাণের বিনিময়ে দিয়েছেন সুভাষ।

পুলিশ বলছে, সুভাষ যাদব তার বন্ধুর সঙ্গে ডিম খাওয়ার বাজি ধরেছিলেন। এ জন্য তারা স্থানীয় বিবিগঞ্জ বাজারে যান। ডিম খাওয়ার জন্যই তারা বাজারে গিয়েছিলেন। সেখানে পৌঁছার পর সুভাষের সঙ্গে তার বন্ধুর ডিম খাওয়া নিয়ে তর্কাতর্কি হয়। এর একপর্যায়ে ৫০টি ডিম খাওয়ার চ্যালেঞ্জ দেয়া হয় সুভাষকে; খেতে পারলে দুই হাজার রুপি পাবেন তিনি।

সুভাষও বাজিতে রাজি রয়ে যান এবং ডিম খাওয়া শুরু করেন। টানা ৪১টি ডিম খেয়ে ফেলে। খাওয়ার জন্য ৪২ নম্বর ডিমটি মাত্র হাতে তুলে নেন তিনি। কিন্তু সেটি আর মুখে পুড়তে পারেননি। সংজ্ঞা হারিয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন।

স্থানীয় জনগণ প্রথমে তাকে উদ্ধারের পর জেলা হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে সেখান থেকে তাকে সঞ্জয় গান্ধী পোস্ট গ্রাজুয়েট ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্স হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে এক ঘণ্টা চিকিৎসাধীন থাকার পর মারা যান তিনি।

চিকিৎসকরা বলছেন, অতিরিক্ত খাওয়ার কারণে মারা গেছেন সুভাষ। তবে সুভাষের পরিবারের সদস্যরা এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

 

 

 

 

 

সূত্র : আইএএনএস,সময় নিউজ

প্রতিবেদনটি জনস্বার্থে প্রকাশ করা হলো

 

 

image_pdfimage_print